মিজানুর রহমান মিজান, রংপুর অফিস : রংপুরের পীরগঞ্জে লুটপাট অগ্নিসংযোগ ও সহিংসতার ঘটনায় আরও তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত রাত থেকে আজ মঙ্গলবার ভোর পর্যন্ত পীরগঞ্জ উপজেলা শহরের বিভিন্ন এলাকা থেকে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ নিয়ে গ্রেপ্তার ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়াল ৬৯।

মোঙ্গলবার(২৬,অক্টোবর) নতুন গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন আশিকুর রহমান (২৪), পলাশ হোসেন (৩৫) ও শাফিকুর রহমান (২৬)। তাঁরা সহিংসতার ঘটনায় অগ্নিসংযোগ, লুটপাট ও ভাঙচুর মামলার আসামী।

পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) স্বরেন চন্দ্র বলেন, নতুন গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের কাছ থেকে একটি মাছ ধরার জাল উদ্ধার করা হয়েছে। তাঁদের আজ মঙ্গলবার যেকোনো সময় আদালতে পাঠানো হবে। ওসি আরও জানান, সঠিক তথ্য নির্ভুলভাবে যাচাই-বাছাই করার পর প্রযুক্তি ব্যবহার করে প্রকৃত অপরাধীদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে।

পীরগঞ্জ সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার কামরুজ্জামান বলেন, এখন পর্যন্ত ৫০ জন রিমান্ডের আওতায় এসেছে। আমরা প্রকৃত অপরাধীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছি।

ফেসবুকে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে ১৭ অক্টোবর রাতে পীরগঞ্জের রামনাথপুর ইউনিয়নের মাঝিপাড়া গ্রামের বড় করিমপুরের হিন্দুপাড়ায় উত্তেজিত জনতা হামলা চালিয়ে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ করে। ওই ঘটনায় পীরগঞ্জ থানায় তিনটি মামলা করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের মধ্যে রংপুর কারমাইকেল কলেজের দর্শন বিভাগের ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত সহসভাপতি সৈকত মণ্ডল এবং মাঝিপাড়া এলাকার বটেরহাট জামে মসজিদের ইমাম রবিউল ইসলাম আছেন।