নোয়াখালী প্রতিনিধি : নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার নিঝুমদ্বীপ ইউনিয়নের পাশ্বর্ববর্তী বঙ্গোপসাগরের ধমারচর এলাকায় মাছ ধরার ট্রলার ‘এম বি সিরাজ’ ডুবে গেছে। এতে ট্রলারে থাকা ১৬ জেলের মধ্যে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে।

নিহত জেলেরা হলেন- জাহাজমারা ইউপির আমতলি গ্রামের বাসিন্দা মাইন উদ্দিন ও নতুন সুখচর গ্রামের বাসিন্দা মো. রাফুল। নিখোঁজ জেলেরা হলেন- শরীফ ও বেলাল।

শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে বঙ্গোপসাগরের দমারচরে এ দুর্ঘটনা ঘটে। ট্রলারে থাকা অপর ১২ জেলে জীবিত উদ্ধার হলেও ঘটনায় এখনো নিখোঁজ রয়েছে দুই জেলে।

স্থানীয় বাসিন্দা জিল্লুর রহমান জানান, ১৬ জন জেলে নিয়ে কয়েকদিন আগে মাছ ধরতে গভীর সমুদ্রে যায় এম বি সিরাজ নামের একটি ট্রলার। বৃহস্পতিবার গভীর রাত পর্যন্ত মাছ ধরা শেষ করে শুক্রবার ভোরে ঘাটের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে তারা। সকাল ১০টার দিকে তাদের ট্রলারটি নিঝুমদ্বীপ এলাকার বঙ্গোপসাগরের ধমারচরে পৌঁছালে ঝড়ের কবলে পড়ে ডুবে যায়।

এতে ট্রলারে থাকা ১৬ জেলে সাগরে পড়ে যায়। পরে পাশে থাকা ‘এম বি ইয়ামিন চৌধুরীর’ ট্রলারে ১২ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করে। জোয়ারের আঘাতে ডুবে যাওয়া ট্রলারটি পাশের একটি চরে গিয়ে আটকা পড়লে লুৎফুল্লাহিল মজিব নিশানের ট্রলারে ক্ষতিগ্রস্থ ট্রলারের ভিতর থেকে মাইন উদ্দিন ও রাফুলের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

হাতিয়া থানার পরিদর্শক কাঞ্চন কান্তি দাশ বলেন, মাছ ধরার ট্রলার ডুবির ঘটনায় দুই জেলের মৃত্যু হয়েছে। এখনো নিখোঁজ হয়েছেন আরো দুই জেলে। পুলিশ ঘটনাস্থলে যাচ্ছে। পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।