সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি : সুনামগঞ্জে পারিবারিক কলহের জেরে তৈয়বুর রহমান হত্যা মামলায় লুৎফুর রহমান(৩৫) নামের একজনকে মৃত্যুদন্ডের রায় দিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত।

দন্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি হলেন- সদর উপজেলার গৌরারং ইউনিয়নের আদর্শগ্রামের মৃত কুদরত উল্লার ছেলে। মঙ্গলবার দুপুরে সুনামগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা দায়রা জজ আদালতের বিচারক মহিউদ্দিন মুরাদ এ রায় প্রদান করেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, গত ২০০৮ সালের ২২ ফেব্রæয়ারি রাতে পারিবারিক কলহের জের ধরে সুনামগঞ্জের গৌরারং ইউনিয়নের আদর্শগ্রাম এলাকায় তালতো ভাই লুৎফুর রহমানের হাতে খুন হন তৈয়বুর রহমান। এ ঘটনায় ওই রাতে নিহতের বোন সিতারুন বেগম বাদি হয়ে ৭ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

এ মামলায় পুলিশ তদন্ত করে লুৎফুর রহমান ও মিজানুর রহমানকে আসামী করে আদালতে চার্জসিট প্রদান করেন। স্বাক্ষী প্রমাণ শেষে আজ অতিরিক্ত জেলা দায়রা জজ আদালতের বিচারক আসামী লুৎফুর রহমানকে দোষী সাব্যস্থ করে মৃত্যুদন্ড ও ২৫ হাজার টাকার অর্থদন্ডে দন্ডিত করেন। অপর আসামী মিজানুর রহমান দোষী সাব্যস্থ না হওয়ায় তাকে বেকুসর খালাস প্রদান করা হয়।

এদিকে মামলা দায়েরের পর থেকে হত্যা মামলার মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামী লুৎফুর রহমান পলাতক রয়েছেন।
এ ব্যাপারে অতিরিক্ত জেলা দায়রা জজ আদালতের রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবী অ্যাড. সোহেল আহমদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।