আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি : আনন্দ আর উচ্ছ্বাসের মধ্যদিয়ে বগুড়ার আদমদীঘির সান্তাহারে এসএসসি ১৯৮৯ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের পূণর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার সকালে শুরুতেই ফারিস্তা বিনোদন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত পূণর্মিলনী অনুষ্ঠানে দেশের নানা স্থানে বিভিন্ন পর্যায়ে কর্মরত সকল বন্ধুরা যোগদান করেন। এরপর বর্ণাঢ্য আনন্দ শোভাযাত্রা সান্তাহার পৌর শহরের বিশেষ বিশেষ সড়ক প্রদক্ষিণ করে। প্রিয় বন্ধুদের সাথে মিলিত হতে পেরে বাঁধভাঙ্গা উচ্ছ্বাসে মেতে ওঠেন তাঁরা। এ যেন এক অভূতপূর্ব প্রাণের মিলন মেলা।

বেলা ১২টার দিকে ওই বিনোদন কেন্দ্রর হলরুমে পরিচিতি পর্ব, জুম্মার নামাজের বিরতির পর মধ্যাহ্নভোজ, র‌্যাফেল ড্র, আলোচনা, স্মৃতিচারণ, প্রাক্তন শিক্ষকদের সম্মাননা স্মারক প্রদান ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

এসএসসি-৮৯ ব্যাচ ফাউন্ডেশনের আহবায়ক মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ওই ব্যাচের শিক্ষার্থী ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মাহফুজুল হক টিকন, স্কয়ার হাসপাতালের হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার সরওয়ার পারভেজ, প্রকৌশলী মালা, মানিক, অধ্যাপক তহমিদুল হক মুক্তি, বিনত কুমার, অ্যাডভোকেট নুরুল ইসলাম ফাইটার, জহুরুল হক বিপ্লব, রনজিত, আজমেরি গ্রুপের ম্যানেজার আকরাম, চঞ্চল, সেলিম, মিঠু, বাচ্চু, রেজাউল, অধ্যক্ষ শাহানাজ, আঞ্জু, সোহেলী প্রমূখ। এসময় ওই ব্যাচের ১৪৪ জন শিক্ষার্থীরা পরিবারসহ উপস্থিত ছিলেন।

আয়োজক কমিটির সদস্য মাহফুজুল হক টিকন বলেন, লেখা-পড়া করে আমাদের অনেক বন্ধু অনেক উচ্চ পর্যায়ে দায়িত্ব পালণ করছেন। ৩২ বছর পর আমরা এক সাথে হতে পেরে এ অনুষ্ঠানটি যেন প্রাণের মিলন মেলায় রুপান্তরিত হয়েছে।

আয়োজক কমিটির আহবায়ক মোশাররফ হোসেন জানান, স্কুল জীবনটাকে আবার নতুন করে উপভোগ করার সুযোগ হয়েছে এই আয়োজনের মধ্যদিয়ে। আমরা যেন নিজের অস্তিত্বকে ভুলে না যাই, নিজের শেকড়কে ভুলে না যাই এটাই আমাদের প্রত্যাশা।