বিনোদন প্রতিবেদক : দিনের পর দিন মানুষ যে নিঃসঙ্গ হয়ে পড়ছে, আর পরিবার পরিজন থেকে দূরে সরে যাচ্ছে। একা একজন মানুষ কিভাবে নিঃসঙ্গতা বয়ে বয়ে ক্লান্ত হয়ে জীবন থেকে পালাতে চায়। এরকম মানুষের গল্প নিয়েই জীবন নতুন করে সাজাতে এগিয়ে আসেন কিছু মানুষ। সেই কাহিনি নিয়ে রচিত সময়োপযোগী অনবদ্য নাটক ‘নিঃসঙ্গ নিরাময়’।

শিল্পকলার এক্সপেরিমেন্টাল থিয়েটারে আজ ১৩ জুন সোমবার মঞ্চস্থ হচ্ছে নাটক নিঃসঙ্গ নিরাময়। মতিঝিল থিয়েটার, মতিঝিলের এটি ১৭তম প্রযোজনা ও দশম প্রদর্শনী।

সময়োপযোগী গল্প নির্ভর নাটকটি বরাবরই দর্শকদের হৃদয় জয় করেছে। মৌলিক এ নাটকটির নাট্যকার, বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কারপ্রাপ্ত লেখক, নির্দেশক, অনুবাদক, অভিনেতা রবিউল আলম।

নাট্যকারের ভাষায়, সেই ২০১০ থেকে আমার এই নাটকটির মঞ্চ প্রযোজনা ও অভিনয়ের সাথে যুক্ত আছেন নাজমুল হাসান শুভ-নাসরিন গীতি দম্পতি। নাট্যপ্রয়াস থেকে এটিকে প্রথম মঞ্চে আনেন তাঁরা। ঢাকার কোনো দলে সেটি ছিল আমার প্রথম নির্দেশনার কাজ। তখন ১৪/১৫টি শো হয় এর।

এর বেশ কিছু পর শুভরা এটিকে মঞ্চে আনেন মতিঝিল থিয়েটার (মতিঝিল) থেকে । ৬/৭টি প্রদর্শনীর পর করোনাকালে এর অভিনয় বন্ধ থাকে। প্রদর্শনী আবার শুরু হয়েছে। ৫ চরিত্রের নাটকে ৩টি চরিত্র অনেকবার বদল হলেও শুভ-গীতি এখনও অভিনয় করে যাচ্ছেন তাদের চরিত্রে। বস্তুত তাঁদের সুঅভিনয় এ নাটকের প্রাণ।
ঢাকার শিল্পকলার এক্সপেরিমেন্টাল থিয়েটারে আজ ১৩ জুন সন্ধ্যা ৭.৩০মিনিটে মতিঝিল থিয়েটারের ১০ম মঞ্চায়নে সবাইকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন তাঁরা।

নাটকটি প্রথম প্রচারিত হয়েছিল ঢাকা বেতারে। অভিনয় করেছিলেন সাজ্জাদ ভাই (ম হামিদের বড় ভাই)। বাংলাদেশ টেলিভিশনও ২০১৯ সালে প্রযোজনা করে এটি। অভিনয় করেন তারিক আনাম খান ও তানিয়া আহমেদ।