খোলাবার্তা২৪ ডেস্ক : মুম্বই পুলিশ নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর অফিসারদের ফলো করছে বলে অভিযোগ। এনসিবি’র বিরুদ্ধে রাজনৈতিক পক্ষপাতদুষ্টতার পাল্টা অভিযোগ।

শাহরুখ-পুত্র আরিয়ান খানের গ্রেপ্তারের পরে মুম্বই পুলিশ এবং নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর (এনসিবি) মধ্যে তীব্র বিতর্ক শুরু হয়েছে। সোমবার বিষয়টি চূড়ান্ত জায়গায় পৌঁছেছে। নারকোটিক্স কন্ট্রোল দুই অফিসার সোমবার মুম্বই পুলিশ প্রধানের সঙ্গে দেখা করেছেন।

সূত্র জানাচ্ছে, সেখানে তারা মুম্বই পুলিশের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। বলা হয়েছে, মুম্বই পুলিশ তাদের ফলো বা অনুসরণ করছে।

আরিয়ান-কাণ্ডের প্রধান অফিসার এনসিবি-র জোনাল ডিরেক্টর সমীর ওয়াংখেড়ে। মুম্বই পুলিশের কাছে তিনি অভিযোগ করেছেন, গত কয়েকদিন ধরে তাকে মুম্বই পুলিশের দুই কনস্টেবল ফলো করছে। প্রতিদিন কাজের শেষে একটি গোরস্থানে মায়ের কবর দেখতে যান সমীর।

অভিযোগ, সেখানেই তিনি খেয়াল করেন, দুই কনস্টেবল তাকে ফলো করছেন। শুধু তা-ই নয়, মুম্বই পুলিশ ওই গোরস্থানের সিসিটিভি ফুটেজও নিয়েছে বলে তার অভিযোগ। যদিও সাংবাদিকদের কাছে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাননি তিনি।

এনসিবি-র আরেক অফিসার মুথা জৈনও একই অভিযোগ করেছেন। সাংবাদিকদের তিনি বলেছেন, সমস্ত অভিযোগ লিখিত আকারে পুলিশের কাছে দেওয়া আছে। আলাদা করে এ বিষয়ে তিনি আর কোনো মন্তব্য চান না।

এদিকে আরিয়ান-কাণ্ডে এনসিবি রাজনৈতিক পক্ষপাতদুষ্ট বলে অভিযোগ মহারাষ্ট্রের কংগ্রেস নেতা নবাব মালিকের। তার দাবি, ইচ্ছাকৃতভাবে সাজানো মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে আরিয়ানকে। তার অভিযোগ, ওইদিন অবৈধভাবে বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে তল্লাশি অভিযানে গিয়েছিল এনসিবি। শুধু তা-ই নয়, কয়েকজনকে সেদিন ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল বলে অভিযোগ।

এর আগেও কেন্দ্রীয় এজেন্সির সঙ্গে মহারাষ্ট্র প্রশাসনের বিতর্ক প্রকাশ্যে এসেছে। এবার আরিয়ান-কাণ্ডেও সেই সংঘাত প্রকাশ্যে চলে এলো।