এম. মনিরুজ্জামান, রাজবাড়ী প্রতিনিধি : রাজবাড়ী সদর ও গোয়ালন্দ উপজেলার ৯ টি স্থানে তথ্য মন্ত্রণালয় এবং সাংস্কৃতিক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য, সাবেক শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী ও রাজবাড়ী-১ আসনের এমপি কাজী কেরামত আলীর ব্যানার, ফেস্টুন ও শুভেচ্ছা গেট ভাংচুর করার অভিযোগ করেছেন।

গতকাল রোববার বিকালে শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী ও রাজবাড়ী-১ আসনের এমপি কাজী কেরামত আলী রাজবাড়ীর পুলিশ সুপারের হাতে এই অভিযোগ পত্রটি তুলে দেন। সেই সাথে তিনি আইনানুগ প্রতিকার চেয়েছেন।

লিখিত ওই অভিযোগ পত্রে তিনি বলেছেন, রাজবাড়ী সদর ও গোয়ালন্দ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, মানননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ ও আমার ছবিসহ ব্যানার, ফেস্টুন এবং শুভেচ্ছা গেট দেয়া হয়।

রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা ও আসন্ন ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন কেন্দ্র করে এসব ব্যানার, ফেস্টুন এবং শুভেচ্ছা গেট দেয়া হয়েছে। কিন্তু বর্ধিত সভার আগে থেকে এ পর্যন্ত দৌলতদিয়া ফেরী ও লঞ্চঘাট এলাকা, দৌলতদিয়া বাইপাস সড়ক, দৌলতদিয়া পুলিশ বক্স থেকে গোয়ালন্দ উপজেলা পর্যন্ত, গোয়ালন্দ রেলগেট থেকে খানখানাপুর বড় ব্রীজ পর্যন্ত, গোয়ালন্দ উপজেলা পরিষদের সামনের গেট, রাজবাড়ী জেলা পরিষদ থেকে শ্রীপুর পর্যন্ত, জেলা শহরের পাবলিক হেলথ, বড়পুর ও রেলগেট এলাকার ব্যানার, ফেস্টুন এবং শুভেচ্ছা গেট ভেঙ্গে ও ছিড়ে ফেলা হয়েছে। যে কারণে তিনি প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য জোর সুপারিশ করেছেন।

তিনি এই অভিযোগের অনুলিপি বাংলাদেশ পুলিশের ঢাকা রেঞ্জের উপ-মহা পরিদর্শক, ডিজিএফআই যশোর শাখার অধিনায়ক, রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক ও এনএসআই রাজবাড়ীর উপ-পরিচালক বরাবর পাঠিয়েছেন।