মিজানুর রহমান মিজান, রংপুর অফিস : দ্বিতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ। রংপুরের দুটি উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন আগামী ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

শুক্রোবার (৮ অক্টোবর) প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে আওয়ামী লীগের সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ড ও স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের যৌথসভা গতকাল বৃহস্পতিবার চূড়ান্ত প্রার্থী নির্ধারণ করা হয়। পরে দলটির দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে প্রার্থী চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়।

ঘোষিত তফসীল অনুযায়ী রংপুরের দুটি উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন আগামী ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এর মধ্যে পীরগাছা উপজেলার ৮টি ও পীরগঞ্জ উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন রয়েছে। পীরগাছা উপজেলার ৯টি ইউনিয়নের মধ্যে ৮টি ইউনিয়নে নির্বাচনের জন্য তফসিল ঘোষিত হয়েছে।

এই নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছে পীরগাছা উপজেলার পারুল ইউনিয়নে তােফাজ্জল হােসেন, ইটাকুমারীতে আবুল বাশার, অন্নদাননগরে আমিনুল ইসলাম, ছাওলাতে আব্দুল হাকিম, তাম্বুলপুরে বিদ্যুৎ কুমার রায়, পীরগাছা ইউনিয়নে জাহাঙ্গীর আলম, কৈকুড়ীতে শফিকুল ইসলাম (লবু) ও কান্দিতে আমিনুল ইসলাম রাজ্জাক।

অপরদিকে পীরগঞ্জ উপজেলার ১৫টি ইউনিয়নের মধ্যে ১০টি ইউনিয়নে নির্বাচনের তফসীল ঘোষিত হয়েছে। এদের মধ্যে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছেন, চৈত্রকোল ইউনিয়নে আরিফুজ্জামান শাহ, চতরায় এনামুল হক শাহীন, মদনখালীতে শামছুল আলম, কাবিলপুরে রবিউল ইসলাম, শানেরহাটে মেছবাহুর রহমান। পাঁচগাছীতে বাবুল মিয়া, ভেন্ডাবাড়ীতে ছাদেকুল ইসলাম ও বড় দরগা ইউনিয়নে নুরুল হক, কুমেদপুরে আমিনুল ইসলাম ও টুকুরিয়ায় আতাউর রহমান মন্ডল।

এর আগে নির্বাচন কমিশন রংপুরের দুই উপজেলার ১৮টি ইউনিয়নসহ দেশের ৮৪৮টি ইউপি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার।ঘোষিত তফসীল অনুযায়ী এসব ইউপি নির্বাচনের মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ তারিখ ১৭ অক্টোবর।

এ ছাড়া মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাই আগামী ২০ অক্টোবর। বাছাইয়ের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল ২১ থেকে ২৩ অক্টোবর।আপিল নিষ্পত্তি শুনানী ২৪ ও ২৫ অক্টোবর। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ২৬ অক্টোবর। প্রতীক বরাদ্দ করা হবে ২৭ অক্টোবর। এসব ইউনিয়নে আগামী ১১ নভেম্বর ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।