ময়মনসিংহ অফিস : ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক রিয়াজ উদ্দিন দুলাল হত্যা মামলার রায়ে বিএনপির ১১ জন নেতাকর্মীকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার ময়মনসিংহের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ দ্বিতীয় আদালতের বিচারক সাবরিনা আলী আসামিদের উপস্থিতিতে এ রায় ঘোষণা করেন। রায়ে যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্ত প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে ৬ মাসের কারাদন্ড এবং খোরশেদ ও এরশাদ নামে দু’জনকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়।

দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন, তারাকান্দা উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের তারাটি গ্রামের নাজিরুল হক তালুকদার, হুমায়ুন, শান্ত, বিল্লাল, মোফাজ্জল, শাহিন, সেলিম, আবুল কাশেম, আনোয়ার, শাহীন ও কামাল। নাজিরুল হক তালুকদার ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এবং দন্ডপ্রাপ্ত অন্যরাও বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী পিপি অ্যাডভোকেট সঞ্জীব সরকার সঞ্জু জানান, ২০১১ সালের ২ জুন উপজেলার ১৮ নম্বর রামপুর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী ছিলেন যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন দুলাল। তিনি হেরে যান এবং তার পরাজয়ের জন্য তৎকালীন বিএনপির প্রার্থী নাজিরুল হক তালুকদারকে দায়ী করেন। এরপর ১৬ জুন রাত সাড়ে ৮ টার দিকে উপজেলার কাশিগঞ্জ বাজার থেকে বাড়ি ফেরার পথে দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে তাকে আহত করে।

স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনার পরদিন দুলালের ছোট ভাই মোফাজ্জল হোসেন থানায় নাজিরুল হক তালুকদারসহ আরো ১০ জনের নামে হত্যা চেষ্টার মামলা করেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২১ জুন মারা যান দুলাল। তারাকান্দা থানা পুলিশ ১৩ জনকে আসামী করে ২০১২ সালের ২৯ জানুয়ারী আাদলতে চার্জশীট প্রদান করেন। আসামি পক্ষের আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট এ এইচ এম খালেকুজ্জামান।