মিরসরাই প্রতিনিধি : ভারতে মোহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে মিরসরাই উপজেলা ওলামা মাশায়েখ পরিষদ ও সর্বস্তরের তৌহিদী জনতার উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিতি হয়েছে। মঙ্গলবার (১৪ জুন) সকাল ১০টায় মিরসরাই উপজেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল মহাসড়ক প্রদক্ষিন করে আলীয়া মাদ্রাসার সামনে এসে শেষ হয়। মিছিলোত্তর বিক্ষোভ সমাবেশ মিরসরাই উপজেলা ওলামা মাশায়েখ পরিষদের সভাপতি মাওলানা শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও মাওলানা মফিজ উল্লাহ সিদ্দিকীর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মিরসরাই উপজেলা ওলামা মাশায়েখ পরিষদের উপদেষ্টা মাওলানা মকসুদ আহম্মদ।

আরো বক্তব্য রাখেন ওলামা মাশায়েখ পরিষদের সহ-সভাপতি মাওলানা জমির উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা জাফর উল্লাহ, সদস্য হাফেজ মাওলানা শোয়াইব, মুফতি মাওলানা ফখরুল ইসলাম, মাওলানা আরিফুল হক প্রমুখ।

দোয়া মোনাজাতের মধ্যদিয়ে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশের সমাপ্তি হয়। এসময় বিক্ষুদ্ধ জনতা ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির মুখপাত্র নূপুর শর্মা ও দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীন কুমার জিন্দালের কুশপুত্তলিকা পোড়ানো হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ইসলাম শান্তির ধর্ম। নবী করিম (সাঃ) সম্পর্কে কটুক্তি বিশ্বের কোটি কোটি মুসলমানের ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাত হেনেছে। আমরা আশা করেছিলাম ভারত সরকার কটুক্তিকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিম‚লক ব্যবস্থা নিবে। কিন্তু ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নিজেই একজন মুসলিম বিদ্বেষী। বিজেপি ক্ষমতায় এসে ইসলামবিরোধী একের পর এক পদক্ষেপ নিচ্ছে। মুলমানদের মসজিদ, বাড়ি ঘর মাটির সাথে মিশিয়ে দিচ্ছে। সরকারী মদতে সে দেশের মুসলমানদের হত্যা এবং পদে পদে লাঞ্চিত করা হচ্ছে।

বক্তারা আরো বলেন, বাংলাদেশ মুসলিম দেশ। বাংলাদেশ সা¤প্রদায়িক সমপ্রীতির দেশ। আমরা চাই হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তি করায় জাতীয় সংসদে নিন্দা জ্ঞাপন করা হোক। এছাড়া ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির মুখপাত্র নূপুর শর্মা ও দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীন কুমার জিন্দালকে দ্রæত গ্রেফতার করা হোক।


মিরসরাইয়ে লতিফীয়া মাদরাসার বিক্ষোভ মিছিল

ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির মুখপাত্র নূপুর শর্মা ও দিল্লি শাখার গনমাধ্যম প্রধান নবীন কুমার জিন্দাল মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করেছে মিরসরাই লাতফীয়া কামিল মাদ্রাসার (এম.এ) প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষার্থীরা।

মঙ্গলবার (১৪ জুন) সকাল ১১টায় মিরসরাই লাতফীয়া কামিল মাদ্রাসার গেটে প্রাক্তন ছাত্র তছলিম উদ্দিনের সঞ্চালনায় ও হাফেজ শাহাদাত হোসেনের সভাপতিত্বে বিক্ষোভ মিছিল শেষে প্রধান বক্তার বক্তব্য মাদরাসা পরিচালনা কমিটির অভিবাবক সদস্য রেজাউল করিম সোহেল।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, মিরসরাই পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ওসমান গনি। প্রাক্তন ছাত্রদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ইমরুল কায়েস, জাকারিয়া , মনজু , নুর উদ্দিন, নজরুল ইসলাম, সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, রাসূল (সাঃ) ও তাঁর পরিবার নিয়ে ভারতের বিজেপির মুখপত্র যে অবমাননাকর মন্তব্য করেছে তার জন্য অবিলম্বে ক্ষমা চাইতে হবে। মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে কোন প্রকার অবমাননাকর মন্তব্যে মেনে নেওয়া হবে না তাদের শাস্তির দাবী ও ভারতের সকল পণ্য বর্জনের দাবি জানান বক্তারা।