নওগাঁ প্রতিনিধি : শ্রীলঙ্কা দেখেছেন, আফগানিস্তান, ‘পাকিস্তান দেখেছেন। সিদ্ধান্ত নিন তত্ত্বাবধায়ক সরকার দিয়ে সুষ্ঠু নির্বাচন করে ভদ্রভাবে ক্ষমতা ছাড়বেন, নাকি দেশ ছেড়ে পালাবেন। এখনো সময় আছে জনগণের চোখের ভাষা বুঝুন। দেশের গণতন্ত্র ফিরে দিন, নাহলে আপনাদের করুণ দশা হবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু।

শনিবার (১৪ মে) সন্ধ্যায় মুক্তির মোড় শহীদ মিনারের সামনে নওগাঁ জেলা বিএনপি আয়োজিত দেশব্যাপী আওয়ামী সন্ত্রাস নৈরাজ্য ও দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে এবং খালেদার মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

সরকারের উদ্দেশে বিএনপির এ নেতা বলেন, ‘সরকার নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি করে লুটপাট করছে। দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধে বর্তমান সরকার ব্যর্থ। সরকারকে ব্যর্থতার দায় নিয়ে পদত্যাগ করা উচিত।’

তিনি বলেন, ‘গণতন্ত্রের মানষকন্যা বেগম খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের নেতৃত্বে শিগগিরই অবৈধ সরকারের পতনে দুর্বার আন্দোলন শুরু হবে। দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার মধ্য দিয়ে এ আন্দোলন শেষ হবে। নেতা-কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে সরকার পতনের আন্দোলন সফল করার আহ্বান জানান তিনি।’

আওয়ামী লীগের নেতাদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘বিএনপির নেতা কে, কোন নেতা প্রধানমন্ত্রী হবে সেসব নিয়ে না ভেবে নিজেদের কথা চিন্তা করুন। সুষ্ঠু নির্বাচন দিয়ে ক্ষমতা না ছাড়লে আপনাদের ভাগ্যে শ্রীলঙ্কা-আফগানিস্তানের নেতাদের মতো করুন পরিস্থিতি হবে। তাদের মতো পালানোর পথ পাবেন না। ‘

এ সময় জেলা বিএনপির আহবায়ক আবু বক্কর সিদ্দিকের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ শাহীন শওকত।

জেলা বিএনপির সদস্য সচিব বায়েজিদ হোসেনের সঞ্চালনায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সাবেক সাংসদ শামসুল আলম প্রামানিক ও ছালেক চৌধুরী, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আনোয়ার হোসেন, নওগাঁ পৌরসভার মেয়র ও জেলা বিএনপির সভাপতি নজমুল হক, জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল ইসলম ধলু , জেলা বিএনপির যুগ্ন আহবায়ক মামুনুর রহমান রিপন, আমিনুল ইসলাম, শেখ রেজাউল ইসলাম ও শফিউল আজম (ভিপি) রানা, মহাদেবপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি রবিউল আলমসহ প্রমুখ।