মুনীরুল ইসলাম, শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি : আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম বলেছেন, বিএনপি যদি আগামী ১০ ডিসেম্বর ঢাকায় শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করে আমাদের কোন মাথাব্যথা নেই। আমরা কিছু বলবো না। আমরা এটা নিয়ে চিন্তাও করি না। কিন্তু সেদিন যদি তারা জনসভার নামে কোনো ধরনের সন্ত্রাসী, নৈরাজ্য বা ধ্বংসাত্মকমূলক পথ বেছে নেয় তবে অবশ্যই দেশের মানুষের জানমাল রক্ষায় আওয়ামী লীগের প্রতিটি নেতাকর্মী তার উপযুক্ত জবাব তাদের দিবে।

মঙ্গলবার (১৫ নভেম্বর) বিকেল ৩টায় শ্রীনগর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক জহিরুল হক নিশাত সিকদার এর সভাপতিত্বে শ্রীনগর স্টেডিয়ামে সম্মেলনের ১ম অধিবেশনে আলোচনা সভা শুরু হয়।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম।

সম্মেলনের উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন- মুন্সীগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আল মাহমুদ বাবু। প্রধান বক্তা হিসেবে ছিলেন সাধারণ সম্পাদক তাজুল ইসলাম পিন্টু।

বাহাউদ্দিন নাসিম আরো বলেন, বিএনপি বিনা ভোটে ক্ষমতায় এসে সারা বাংলাদেশে ধ্বংসলীলা ও তান্ডব চালিয়েছিল। সারা দেশে তারা লুটপাট করেছিল। ধ্বংস করে দিয়েছিল পুরো দেশের অবকাঠামোকে। তারা বহু নারী ও শিশুকে ধর্ষণ করেছে। তারা মন্দির উপাসনালয়ের জায়গা, এমনকি মসজিদে হামলা করেছে। তারা এখনো ধ্বংস হয়নি, এখনো দেশের বিরুদ্ধে ষডযন্ত্র করছে। তাদের অপকর্মের রাজনীতি এখনো চলছে। তারা এখনো দেশকে মিনি পাকিস্তান বানাতে চায়। এর জন্য তারা সকল ষডযন্ত্রই চালিয়ে যাচ্ছে।

সভায় প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব হামিদুল্লাহ খান মুন এর সঞ্চালনায় সম্মানিত বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের এমপি এ্যাডঃ মৃণাল কান্তি দাস। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি গাজী মেজবাউল হোসেন সাচ্চু, সাধারণ সম্পাদক এ কে এম আফজালুর রহমান বাবু, আওয়ামী লীগের সাবেক স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডাঃ বদিউজ্জামান ডাবলু, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাফিউল করিম নাফা।

এ ছাড়াও অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী তোফাজ্জল হোসেন, সহ-সভাপতি সেলিম আহম্মেদ ভূইয়া, স্বেচ্ছাসেবক লীগের উপদেষ্ঠা মন্ডলীর সদস্য গোলাম সারোয়ার মামুন, ঢাকা দক্ষিণের সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম সারোয়ার কবির, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য মাকসুদ আলম ডাবলু, জাতীয় পরিষদ সদস্য ইঞ্জিঃ জহিরুল ইসলাম ইসহাকসহ আরো অনেকে।

আলোচনা শুরুর পূর্বে শতাধিক নেতাকর্মীর অংশগ্রহণে বর্ণাঢ্য র‍্যালী বেরা করা হয় এবং দলীয় ও জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। রাতে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করা হয়।