এম. মনিরুজ্জামান, রাজবাড়ী প্রতিনিধি : রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে হিজড়াদের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে হামলায় ৫জন আহত হয়েছে। আহত ৫ হিজড়া কালুখালী উপজেলার।

হামলার শিকারে জখম অবস্থায় তাদেরকে কালুখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়েছে। আহতরা হলো সুমি আক্তার(২৬), গোলাপ (২৫), শিখা (২১), টুম্পা (১৫), গঙ্গা (১৭)।

এ ব্যপারে থানায় এজাহার দায়ের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সুমি আক্তারের নেতৃত্বে ১০-১১ জন হিজড়া বালিয়াকান্দি উপজেলার তালতলা গ্রামে মান্নান ও অকিলের বাড়ীতে বাচ্চা নাচাতে যায়। এসময় সাদিয়ার নেতৃত্বে খুশি, মালেকা সহ ২০-২৫ জন নিয়ে হামলা চালায়।

আহত সুমি আক্তার জানায়, তাদের প্রতিপক্ষ সাদিয়া আধিপত্য বিস্তার করার চেষ্টায় দলবল নিয়ে তাদের উপর হামলা চালিয়েছে। হামলায় সুমি আক্তারের নিকট ১টি সোনার চেইন, ১টি মোবাইল ফোন ও নগদ অর্থ ও সোনার বালা ছিনিয়ে নেয়। এরপর সাদিয়া তার পূর্বপ্রস্তুতি অনুযায়ী আহত ৩ জনকে মাইক্রোবাসে তুলে খোকসা নিয়ে যায়। সেখানে তাদেরকে নির্যাতন করা হয় এবং সাদা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নিয়ে জীবন নাশের হুমকি দিয়ে ছেড়ে দেয়।

এ ব্যাপারে রাজবাড়ী হিজড়া সমিতির সভাপতি চৈতির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, সাদিয়া ও তার দলবল মিলে রাজবাড়ীর অধিকাংশ এলাকা তাদের নিয়ন্ত্রণে রাখতে চায়। সাদিয়ার নিয়ন্ত্রণে পুরো এলাকা না দেওয়ার ফলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে এবং প্রতিপক্ষ হিজড়াদেকে বিভিন্ন সময় মারধার ও নির্যাতন করে চলছে।