বাগমারা প্রতিনিধি : বাগমারার গোবিন্দপাড়া ও নরদাশ ইউপিতে নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী অফিস ও প্রতীক ভাংচুর করা হয়েছে এমন অভিযোগে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অপসারণের দাবিতে বিভিন্ন ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করা হয়েছে।

বুধবার বিকেলে দ্বীপপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের উদ্যোগে নানসর বাজারে একটি বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। মিছিলটি বাজারের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে প্রতিবাদ সভায় ইউনিয়ন আ’লীগের সহ-সভাপতি প্রভাষক মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাকের সভাপতিত্বে ও ৪ নং ওয়ার্ড আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক জুয়েল রানার সঞ্চালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাষ্টার আব্দুস সাত্তার, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মতিউর রহমান, যুগ্ন-সম্পাদক রুস্তম আলী, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক মকসেদ আলী ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক পলাশ উদ্দিন প্রমূখ। এছাড়া উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে আ’লীগের পক্ষ থেকে বিক্ষোভ মিছিল করা হয়েছে।

এদিকে গতকাল বিকেলে বাগমারা উপজেলা আ’লীগ ও মহিলা আ’লীগের উদ্যোগেও বঙ্গবন্ধু কমপ্লেক্সের সামনে থেকে একটি ঝাঁটা মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি ভবানীগঞ্জ বাজারের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে নিউমার্কেটের সামনে প্রতিবাদ সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাগমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ, দপ্তর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী কোহিনুর বেগম, সাধারণ সম্পাদক জাহানারা বেগম ও ভবানীগঞ্জ পৌরসভার সভানেত্রী মমতাজ আক্তার বেবি প্রমূখ।

বক্তারা গোবিন্দপাড়া ও নরদাশ ইউনিয়নে নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী অফিস ও প্রতীক ভাংচুর করা হয়েছে এমন অভিযোগ তুলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অপসারণের দাবি জানিয়েছেন।

এদিকে বাগমারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফারুক সুফিয়ান বলেছেন- ২০১৬ সালের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের ১৬ ও ১২ নং ধারা মোতাবেক অভিযান চালানো হয়েছে। নির্বাচন সুষ্ঠু করার জন্য প্রশাসন সব ধরণের পদক্ষেপ নিবে।