এম এম হারুন আল রশীদ হীরা, নওগাঁ : নওগাঁর ধামইরহাটের একটি ফসলের মাঠ থেকে জান্নাতুন ফেরদৌস (৩৮) নামে এক গৃহবধূর রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। তিনি আলমপুর ইউপির সাবেক ইউপি সদস্য ও মঙ্গলীয়া গ্রামের ইফতেখার আশরাফের স্ত্রী। বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে বীরগ্রাম ও মঙ্গোলিয়া গ্রামের ফসলি মাঠ থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত জান্নাতুনের স্বজনেরা বলেন, বুধবার সন্ধ্যার কিছু আগে জান্নাতুন বাড়ি থেকে এক প্রতিবেশির বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বের হন। অনেকক্ষণ পরেও বাড়িতে না আসায় ওই প্রতিবেশির বাড়িতে তার খোঁজ করলে প্রতিবেশির বাড়ির লোকজন জানান জান্নাতুন তাদের বাড়িতে আসেইনি। এরপর বিভিন্ন জায়গায় তার খোঁজ শুরু করেন স্বজনেরা। ঘটনাক্রমে ১৩ জানুয়ারী (বৃহস্পতিবার) সকাল ১০টার দিকে স্থানীয় ব্যক্তিরা বীরগ্রাম ও মঙ্গোলিয়া গ্রামের ফসলি মাঠে জান্নাতুনের লাশ পড়ে থাকতে দেখে পরিবারের লোকজনকে খবর দেন।

খবর পেয়ে জান্নাতুনের পরিবারের লোকজন ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাশ শনাক্ত করেন। এ সময় জান্নাতুনের লাশ রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে ছিল। লাশের মাথায় গভীর ক্ষত রয়েছে। এ ছাড়া তার শরীরের অন্যান্য অংশেও আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

খবর পেয়ে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ধামইরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম রাকিবুল হুদা ঘটনাস্থলে এসে লাশ উদ্ধার করেন। পরে নারী পুলিশের সহায়তায় সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরির পর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

ওসি কে এম রাকিবুল হুদা বলেন, লাশের মাথায় ভারী কিছু দিয়ে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে, সুরতহাল রিপোর্ট শেষে ময়না তদন্তের মাধ্যমে বিস্তারিত নিশ্চিত হওয়া যাবে। ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।