আব্দুর রশীদ তারেক, নওগাঁ : অবৈধভাবে ক্রিপ্টোকারেন্সি লেনদেন মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে আতা রাব্বী (২৩), রাসেল হোনের (২১) ও মিঠুন কর্মকার (৩০) নামের ৩ যুবককে আটক করেছে র‌্যাব। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার নুিজপুর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডে দক্ষিণ হরিপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়।

আটককৃতদের মধ্যে আতা রাব্বী জেলার পতœীতলা উপজেলা বাবনাবাজ, রাসেল হোসেন গসাইপুর এবং মিঠুর কর্মকার পাবরা জেলার আমিনপুর থানার খানপুর গ্রামের বাসিন্দা। আজ সকালে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে জয়পুরহাট র‌্যাব-৫।

র‌্যাব-৫ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৫ জয়পুরহাট ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার মেজর মোস্তফা জামান, আটিলারি ও সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মাসুদ রানার নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করে জেলা পত্নীতলা উপজেলা দক্ষিণ হরিরামপুর গ্রাম থেকে অভিযুক্তদের আটক করা হয়।

আটকের সময় তাদের কাছ থেকে ১৪টি স্মাটফোন, ৫টি সিম, ২টি ল্যাবটপ, ৫টি মাউচ, ৫টি কীবোর্ড, ১৫টি ক্যাবল, ১টি ব্যাংক চেক, ১টি স্ট্যাম্প, ১টি পাওয়ার ব্যান্ড ও নগদ ৫৮০ টাকা জব্দ করা হয়।

আটককৃতরা ডিজিটাল মাধ্যমে টিন্ডাসহ বিভিন্ন ডেটিং ওয়েবসাইট ব্যবহার করে ডিজিটাল ডিভাইসের মাধ্যমে অনলাইনে অবৈধ আর্থিক লেনদেন করে আসছিলেন। তারা অধৈৎবধ ভাবে বিদেশীদের কাছ থেকে ডলার কিনে টাকায় রুপান্তের পাশাপাশি কমিশন রেখে বিদেশীদের কাছে পাঠাতেন। এভাবে তারা ক্রিতারা অন্যান্য পেশাদার ক্রিপ্টোকারেন্সি ডিলারের মাধ্যমে অবৈধভাবেডলার কেনাবেচার মাধ্যমে বাংলাদেশ সরকারকে কর ফাকি দিয়ে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিলেন।