বগুড়া অফিস : বগুড়ার ধুনট উপজেলায় নির্মাণাধীন সেতুর ঢালাই কাজের শাটার ভেঙ্গে নুতু প্রামানিক (৬০) নামে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার সকাল ১১টার দিকে ধুনট ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের সামনের নির্মাণাধীন সেতুতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আরো দুই জন শ্রমিক আহত হয়েছেন।

নিহত নুতু প্রামানিক কাজিপুর উপজেলার হরিনাথপুর গ্রামের মৃত খলিল প্রামানিকের ছেলে।

আহত শ্রমিকেরা হলো- যশোর জেলার শার্ষা থানার চান্দুলিয়া গ্রামের গোলাম মোস্তফার ছেলে মকবুল হোসেন (২৪) ও সির্জাগন্জের কাজিপুরের হরিনাথপুর গ্রামের মৃত আজগর আলীর ছেলে কোব্বাত আলী (৫৫)।

স্থানীয়রা জানান, সড়ক ও জনপথ বিভাগের তত্বাবধায়নে বগুড়ার একটি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান সেতুটি নির্মাণ কাজ বাস্তবায়ন করছে। বুধবার সকাল ১১টার দিকে সেতুটি ঢালাইয়ের জন্য বাঁশ ও কাঠের সার্টার তৈরী করে উপরে উঠে তিন জন শ্রমিক কাজ করছিলেন।

এ সময় কাঠের তৈরী সার্টারটি ভেঙ্গে নিচে পড়লে ঘটনাস্থলেই শ্রমিক নুতু প্রামানিকের মৃত্যু হয়। এঘটনায় আহত দুই শ্রমিককে উদ্ধার করে ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

ধুনট থানার ওসি কৃপা সিন্ধু বালা জানান, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। নিহত শ্রমিকের লাশ তাদের স্বজনেরা নিয়ে গেছে।