কাজী খলিলুর রহমান, ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ঝালকাঠি জেলায় ১৬৯টি পূজা মন্ডপে এ বছর শারদীয় দূর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সরকার প্রতিটি পূজা মন্ডপের জন্য সরকারি সহায়তা হিসাবে ৫০০ কেজি করে চাল বরাদ্দ করেছে। সরকার প্রায় ১০ বৎসর যাবত এই হারে বরাদ্দ দিয়ে আসছে।

পূজা উৎযাপন কমিটি পক্ষ থেকে দাবী করা হয়েছে, জিনিসপত্রের দাম বেড়ে যাওয়ায় পূজার ব্যায়ও প্রতিনিয়ত বাড়ছে কিন্তু সরকার বাজার দর এর সাথে তাল মিলিয়ে বরাদ্দ বৃদ্ধি করছে না।

করোনা পরিস্থিতিজনিত কারণে সার্বজনিন পূজা মন্ডবের পরিচালনা কমিটি তাদের চাঁদাহার কমে গেছে। এই পরিস্থিতিকালীন সময় সব পেশার মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় পূর্বের হারে চাদা দিতে পারছে না।

এই কারনে এ বছরে মন্ডপ কমিটি কাঙ্খিত আয় হবে না। অন্যদিকে সরকারের চাল ক্রয় সূত্রে অর্থনৈতিক মূল্য টন প্রতি ৪৫ হাজার টাকা হলেও ডিউ লেটারগুলো নিয়ে পূজা কমিটির বিক্রী করে ২৫ হাজার টাকা করে মেট্রিকটন প্রতি বিক্রী মূল্য পাচ্ছে। পূজা উৎযাপন পরিষদের দাবী প্রতিটি পূজা মন্ডবের জন্য নূন্যতম ০১ মেট্রিকটন করে চাল বরাদ্দ করা প্রয়োজন।

ঝালকাঠি জেলার মধ্যে ঝালকাঠি পৌরসভাসহ সদর উপজেলায় ৭৩টি, কাঠালিয়া উপজেলায় ৫৪টি, নলছিটি উপজেলায় ২২টি ও রাজাপুর উপজেলায় ২০টি পূজা মন্ডপে এ বছর শারদীয় দূর্গা পূজা হচ্ছে।