কাজী খলিলুর রহমান, ঝালকাঠি প্রতিনিধি : শব্দদূষণের ফলে বাংলাদেশে জনসংখ্যার তিনের একাংশ কানে কম শুনছে। পাশাপাশি হার্টের সমস্যা, মস্তিস্ক ও চোখের ওপর প্রভাব, বন্যপ্রাণী এবং পরিবেশের ওপর প্রভাবসহ নানা সমস্যা সৃষ্টি হচ্ছে শব্দদূষণের ফলে।

ঝালকাঠিতে আজ মঙ্গলবার দুপুরে শব্দদূষণ নিয়ে সচেতনতামূলক মতবিনিময় সভায় বক্তারা এ তথ্য জানান। তাই শব্দদূষণ রোধে কার্যক্রর পদক্ষে গ্রহণের জন্য তাগিদ দেওয়া হয় মতবিনিময় সভা থেকে। একই সঙ্গে এ বিষয়ে বিধিমালা অনুযায়ী আইন প্রয়োগ করার ওপরও গুরুত্ব দেওয়া হয়।

ঝালকাঠি জেলা প্রশাসন ও ইকিউএমএস কনসালটিং লিমিটেড এবং বায়ুমন্ডলীয় দূষণ অধ্যায়ন কেন্দ্র (ক্যাপস) এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এতে সরকারি বেসরকারি কর্মকর্তা, চিকিৎসক, ট্রাফিক বিভাগের কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক, শিক্ষক, শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ অংশ নেয়।

মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন ঝালকাঠির অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন ঝালকাঠি সদর হাসপাতালের তত্ত¡াবধায়ক এসএম জহিরুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শংকর কুমার দাস ও ট্রাফিক পুলিশের পরিদর্শক আনিচুর রহমান।

মতবিনিময় সভায় শব্দদূষণের উৎস চিন্হিত করা, জনসাধারণের মাঝে সচেতনতা বৃদ্ধি করা এবং এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের মতামতের ভিত্তিতে শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সুপারিশ প্রণয়ন করার দাবি জানানো হয়।