ফাইল ছবি

কাজী খলিলুর রহমান, ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ঝালকাঠি জেলায় চতুর্থ পর্যায়ে ভূমিহীন পরিবারকে পূণর্বাসনের জন্য ৩৬৬ খানা ঘর নির্মাণের বরাদ্দ এসেছে। জেলায় হালনাগাদ জরিপ অনুযায়ী ভূমিহীন ও গৃহহীন (ক-শ্রেণিভুক্ত) পরিবারের সংখ্যা ২০৮৬টি। এরমধ্যে ১ম পর্যায় থেকে ৪র্থ পর্যায়ের ১ম কিস্তি পর্যন্ত ১৮৯২খানা ঘর নির্মাণ করা হয়েছে।

জেলা প্রশাসন উপজেলা প্রশাসনের সাথে সমন্বয় বজায় রেখে এই গৃহ নির্মাণ প্রকল্পের জন্য ৩২.৫২একর খাস জমি উদ্ধার করে সেখানে গৃহনির্মাণ করে ভূমিহীনদের পূণর্বাসন করা হয়েছে এবং ৪র্থ পর্যায়ের ২য় ধাপে ৩৬৬ খানা ঘর নির্মাণের জন্য আরও ৭.৩২ একর খাস জমি উদ্ধার করে সেখানে এই গৃহনির্মাণ করা হবে।

সরকার এই কর্মসূচি চালু করার প্রথম পর্যায় ১ লাখ ৭১ হাজার টাকা ব্যয়ে ২ শতাংশ জমির উপরে গৃহনির্মাণ করেছে এবং ২য় ধাপে ১ লাখ ৯০ হাজার, ৩য় ধাপে ২ লাখ ৫৯ হাজার এবং সর্বশেষ ৪র্থ ধাপে এসে ২ লাখ ৯০ হাজার টাকা ব্যয়ে গৃহনির্মাণ করা হচ্ছে।

নতুন করে ৩৬৬ পরিবারের জন্য ৩৬৬ খানা গৃহনির্মাণের মধ্যে ঝালকাঠি সদর উপজেলায় ১১৮খানা, নলছিটি উপজেলায় ১৪৮ খানা, রাজাপুর উপজেলায় ৫০খানা এবং কাঠালিয়া উপজেলায় ৫০ খানা গৃহনির্মাণের ফলে জেলার ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের চাহিদা পূরণ সম্ভব হবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অগ্রাধিকার আবাসন প্রকল্প থেকে গৃহনির্মান প্রকল্প নিয়ন্ত্রিত হচ্ছে। ইতিমধ্যেই ঘরের পূনর্বাসন চেয়ে ভূমিহীন পরিবারগুলি শেখ হাসিনার প্রতি তাদের কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছে।

এ পর্যন্ত ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলায় ৫২৭ খানা, রাজাপুর উপজেলায় ৫৬১ খানা, নলছিটি উপজেলায় ৪৮৫ খানা ও ঝালকাঠি সদর উপজেলায় ৩১৯ খানা গৃহনির্মাণ করা হয়েছে।