মিজানুর রহমান মিজান, রংপুর অফিস : রংপুর মেট্রোপলিটন হারাগাছ থানা পুলিশের এক বিশেষ অভিযানে চুরি যাওয়া মালামাল তল্লাশি করার সময় গাজা, হিরোইন ও ইয়াবা উদ্ধারসহ ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ।

বৃহস্পতিবার ১১ আগস্ট রাতে পুলিশের বিশেষ অভিযানে চুরি যাওয়া মালামাল ও বেশকিছু মাদক উদ্ধারসহ ২ চোর ও চোরাইকৃত মালামাল ক্রয়কারী এবং মাদক কারবারি ৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রংপুর মেট্রোপলিটন হারাগাছ থানাধীন বাহার কাছনা বালাটারির নাজিম উদ্দিন এর গত (১০ আগষ্ট) বুধবার গভীর রাতে তার বসতবাড়ি থেকে বেশ কিছু মূল্যবান সামগ্রী চুরি হয়ে যায়। পরে বাড়িতে লাগানো সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে পাশের গ্রামের দাওয়াই টারীর স্থানীয় দুই চোর সাজু মিয়া (৩৭) ও বস্তা ওয়ালার পুত্র রমজান (৩৫)কে শনাক্ত করে স্থানীয় হারাগাছ থানায় বাড়ি চুরির একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়।

হারাগাছ মেট্রোপলিটন থানা পুলিশ বাড়ি চুরির অভিযোগের ভিত্তিতে সিসি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজে শনাক্ত করে গত রাতেই দুই চোর সাজু মিয়া ও রমজান আলীকে গ্রেপ্তার করে। পরে গ্রেফতার কৃত দুই চোরের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে চুরির মালা মাল উদ্ধারে একই থানাধীন হারাগাছের পূর্ব পোদ্মার পাড়ার চোরাই মালামাল ক্রয় কারি ও মাদক ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম এর বাড়ি থেকে চোরাই গ্যাস সিলিন্ডার ও চুলা উদ্ধার ও পশ্চিম সারাই কাজি পাড়া এলাকায় চোরাই মালামাল ক্রয়কারী ও মাদক ব্যবসায়ী দুলালী বেগম এর বশতবাড়ি থেকে চুরি যাওয়া রাইস কুকার উদ্ধারে পুলিশ তল্লাশি করার সময় ১০০ গ্রাম গাঁজা ও ০৮ পুড়িয়া হিরুইন সহ চোরাই রাইস কুকার উদ্ধার এবং সারাই কাজিপাড়া এলাকার চোরাই মালামাল ক্রয়কারী ও মাদক ব্যবসায়ী আমিনুল ইসলাম এর বাড়িতে চোরাই মালামাল উদ্ধারে তল্লাশি করার সময় ২২ পিস ইয়াবা (নেশা জাতীয় মাদক) উদ্ধারসহ সকল কে গ্রেফতার করা হয়।

হারাগাছ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, প্রথমে সিসি ক্যামেরার ফুটেজে চোর শনাক্ত ও গ্রেপ্তার করার পর তাদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতেই চুরি যাওয়া মালামাল উদ্ধারে তল্লাশিকালে চুরি যাওয়া মালামাল ও মাদক উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, সাজু ও রমজান পেশাদার চোর। দু’জনের নামে রংপুরসহ বিভিন্ন থানায় ইতিপূর্বে চুরি, ছিনতাই ও একাধিক মাদক মামলাসহ ১২টি মামলা রয়েছে। চুরি ও মাদক উদ্ধারর ঘটনায় পৃথক দুটি মামলা করা হয়েছে বলে জানান তিনি।