গোয়াইনঘাটে দুষ্কৃতিকারীরা কৃষকের তরমুজসহ সব্জি বাগান ধ্বংস করেছে     

মনজুর আহমদ, গোয়াইনঘাট : গোয়াইনঘাটে পূর্ব শত্রুতার প্রতিশোধ নিতো কৃষকের সব্জি ও শস্যবাগান ধ্বংস এবং তরমুজসহ বিভিন্ন শস্য চুরি কর নিয়ে গেছে চোরেরা।

গত ২১ মার্চ বিকাল ৪টা ও দিবাগত রাতে উপজেলার পশ্চিম জাফলং ইউনিয়নের উনাই হাওরস্থ আব্দুল মতিন গংদের ক্ষেতের মাটে এ ঘটনা ঘটে।

এ ব্যাপারে স্থানীয় আলীরগ্রামের মৃত রাজ্জাক মিয়ার পুত্র আব্দুল মতিন বাদী পার্শ্ববর্তী ছাতার গ্রামের সুফিয়ান, আব্দুন নুর, হোসেন আহমদ, মনজুর, কবির আহমদের নাম উল্লেখ করে গোয়াইনঘাট থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

গোয়াইনঘাট থানার এসআই মহসিনসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরির্দশন করেন।

সরজমিন গিয়ে ও থানায় দায়েরকৃত লিখিত অভিযোগ সুত্রে জানাগেছে ২১ মার্চ রোববার বিকেলে চাতার গ্রামের সুফিয়ান, আব্দুন নুর, হোসেন, মনজুর, কবিরসহ ১০/১২ জন লোক তাদের পালিত গরু ও মহিষ দিয়ে আব্দুল মতিন গংদের সব্জি ও শশ্য বাগান ধ্বংস করেন এবং প্রায় ২লাখ টাকার ক্ষতি সাধন করেন।

এ সময় বাগানের মালিক পক্ষ বাঁধা দিলে সুফিয়ান গংরা হামলার চেষ্টা করে এবং অকাত্য ভাষায গালিগালাজ করে আরও ক্ষতি সাধন করার হুমকি দিয়ে পালিয়ে যায়। এদিকে ঐদিন দিবাগত রাতে যেকোন সময় দুষ্কৃতকারীরা বাগানের কয়েকশত তরমজ ও মিষ্টি লাউ দা দিয়ে কুপিয়ে বিনষ্ট করে এবং প্রচুর তরমুজ চুরি করে নিয়ে যায়।

এ ছাড়া সুর্যমুখী ফুলের গাছ ও ফুল কেটেফেলে। এতে প্রায় ৩লাখ টাকার ক্ষতি সাধিত হয়। ২২ মার্চ ভোরে চাষীরা মাটে গিয়ে তাণ্ডবলীলা দেখতে পায় এবং ইউএনও, কৃষি কর্মকর্তা ও গোয়াইনঘাট থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। জানতে চাইলে ওসি গোয়াইনঘাট মোঃ আব্দুল আহাদ জানান, লিখিত অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাটিয়েছি, তদন্ত সাপেক্ষ দোষীদের বিরোদ্ধ আইনগত ব্যবস্থা নেব।