এম মাঈন উদ্দিন, মিরসরাই (চট্টগ্রাম) : ১২ দিন পূর্বে গাজীপুর থেকে হারিয়ে যাওয়া দশ বছরের শিশু আব্দুর রহমানকে তার বাবার কাছে ফিরিয়ে দিয়েছেন চট্টগ্রামের জোরারগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ নূর হোসেন মামুন। সোমবার (১০ অক্টোবর) বিকেল ৫টার দিকে তার বাবা মো. সালাহ উদ্দিনের কাছে হস্তান্তর করেন ওসি। রোববার (৯ অক্টোবর) উপজেলার চিনকীআস্তানা থেকে আব্দুর রহমানকে উদ্ধার করে থানা হেফাজতে রাখা হয়।

জোরারগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. নূর হোসেন মামুন বলেন, রোববার চিনকীআস্তানা থেকে এক লোক ফোন দিয়ে জানান একটি শিশু পাওয়া গেছে। সাথে সাথে পুলিশের একটি টিম সেখানে গিয়ে তাকে থানায় নিয়ে আসে। এরপর সে নিজের নাম ছাড়া আর কিছু বলতে পারছে না।

পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেলেটির ছবি দিয়ে পোস্ট করি এবং বিভিন্ন জায়গায় তার পরিবারের সন্ধান করতে থাকি। একটা পর্যায়ে গাজীপুরের জয়দেবপুর এলাকায় তার বাসার খবর জানতে পেরে ওখানকার থানার ওসিকে ফোন করে তার ঠিকানা নিশ্চিত হই।

এরপর ভিডিও কলের মাধ্যমে আব্দুর রহমানের বাবাকে ছেলের চেহারা দেখালে সে তার ছেলেকে সনাক্ত করেন এবং সোমবার বিকেলে থানায় এসে ছেলেকে নিয়ে গেছেন।

তিনি আরো বলেন, শিশুটি কিছুটা মানসিক বিকারগ্রস্থ ও খুবই দরিদ্র পরিবারের সন্তান। গত ২৮ সেপ্টেম্বর বাসা থেকে বেরিয়ে সে নিখোঁজ হয়। সোমবার বিকেলে তাকে কিনে দিয়ে তাদের বিদায় দিয়েছি।

আব্দুর রহমানের বাবা মো. সালাহ উদ্দিন বলেন, আমি ওসি স্যারের কাছে কৃতজ্ঞ। গত ১০-১২ দিন ধরে আমার ছেলেকে পাগলের মতো খোঁজ করেছি, কোথাও পাইনি। ওনার কারণে আজ ছেলেকে ফিরে পেলাম। আল্লাহ উনার মঙ্গল করুন।