ইন্দুরকানী (পিরোজপুর) প্রতিনিধি : পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে শত্রæতার জেরে সাতশতাধিক গাছ কেটে ফেলেছে প্রতিপক্ষরা। রোববার ভোরে উপজেলার পত্তাশী ইউনিয়নের চরনী পত্তাশী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও ভুক্তভোগীর পরিবার সূত্রে জানা যায়, পত্তাশী গ্রামের অসহায় কৃষক আঃ ছত্তার শেখের ছেলে সাব্বির হোসেনের ৩০শতাংশ জমি নিয়ে একই গ্রামের ছিদ্দিক শেখের সাথে দীর্ঘদীন ধরে দ্ব›দ্ব চলে আসছে।

উক্ত জমিতে সাব্বির হোসেন কলা, পেঁপে, ও সুপারী গাছ মিলিয়ে প্রায় সাতশতাধিক গাছ রোপণ করেন। বিরোধপূর্ন জমিতে প্রতিপক্ষ ছিদ্দিক শেখ (৬৫) চাচাতো ভাই মাসুদ শেখ (৩৫), বোন আমেনা বেগম (৪০) সহ ১০/১২ জন মিলে সাব্বির হোসেনের লাগানো সাতশতাধিক গাছ কেটে ফেলেন।

কৃষক সাব্বির হোসেন জানান, সকালে আমার ৩০শতাংশ জমিতে লাগানো কলা, পেঁপে ও সুপারী সহ সাতশতাধিক গাছ ছিদ্দিক শেখ ও মাসুদ সহ তার দলবল নিয়ে কেটে ফেলে। তিনি আরো বলেন, আমি এই জায়গায় কৃষি করে আমার সংসার এবং সন্তানদের লেখাপড়ার খরচ চলে। গাছ কাটায় আমার প্রায় ৪ লক্ষ টাকার ক্ষতি হয়েছে। আমি এখন অসহায় হয়ে পরেছি।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ছিদ্দিক শেখের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, “সাব্বির হোসেন আমার জমি দখল করে কলা, পেঁপে, ও সুপারী চাঁষ করেন। জমি দখল মুক্ত করার জন্য গাছগুলো কেটে ফেলেছি”।

ইন্দুরকানী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ এনামুল হক জানান, গাছ কাটার বিষয় একটি অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনা স্থানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।